আন্তর্জাতিক

কেরালায় গরু জবাইয়ের জন্যই বন্যা হয়েছে: বিজেপি নেতা

বিএনএন ৭১ ডটকম
আর্ন্তজাতিক ডেস্ক: গরু জবাইয়ের জন্যই কেরালায় গত একশ বছরের মধ্যে সবচেয়ে ভয়াবহ বন্যা হয়েছে বলে মন্তব্য করেছেন ভারতের ক্ষমতাসীন দল বিজেপির এক নেতা। কেরালার প্রতিবেশী রাজ্য কর্নাটকের বিজেপি দলীয় আইনপ্রণেতা ও সাবেক কেন্দ্রীয় মন্ত্রী বাসানগৌদা পাতিল ইয়াতনাল এ কথা বলেছেন বলে জানিয়েছে দেশটির জনপ্রিয় টেলিভিশন চ্যানেল এনডিটিভি।

তবে এতেই শেষ করেননি তিনি, বলেছেন, “হিন্দুদের অনুভূতিতে আঘাত দেওয়ার কারণেই কেরালার এই দুর্গতি।”
টানা প্রবল বর্ষণের কারণে এক শতাব্দির মধ্যে সবচেয়ে ধ্বংসাত্মক বন্যায় কেরালায় প্রায় ৩০০ লোকের মৃত্যু ও লাখ লাখ লোক বাস্তুচ্যুত হয়েছে। ব্যাপক এই প্রাকৃতি দুর্যোগকে গরু জবাইয়ের সঙ্গে সম্পর্কিত করেছেন ইয়াতনাল।

তিনি বলেছেন, “গরু জবাই হিন্দু সম্প্রদায়ের অনুভূতির বিরুদ্ধে যায়। কারও ধর্মীয় অনুভূতিতেই আঘাত করা উচিত নয়। এখন আমরা দেখতে পাচ্ছি কেরালায় কী ঘটল, তারা প্রকাশ্যে গরু জবাই করেছিল এবং আপনারা দেখলেন এক বছরেরও কম সময়ের মধ্যে তারা এই দুর্দশার মধ্যে পড়ল।
“হিন্দুদের অনুভূতিতে যারাই আঘাত করবে তারাই এভাবে শাস্তি পাবে।”

এই বক্তব্যে তিনি এক বছর আগের একটি ঘটনার দিকে ইঙ্গিত করেছেন। এক বছর আগে ভারতের কেন্দ্রীয় সরকার গোহত্যা ও বিক্রির ওপর নিষেধাজ্ঞা আরোপ করেছিল, আর এর প্রতিবাদে কেরালার আইনপ্রণেতারা বিধানসভার ক্যান্টিনে গরুর মাংস খাওয়ার উৎসব করেছিল। বাচালতার জন্য ইয়াতনালের কুখ্যাতি আছে বলে জানিয়েছে এনডিটিভি।

গত মাসে তিনি বলেছিলেন, তিনি যদি কর্নাটক রাজ্যের আইনশৃঙ্খলা বিষয়ক মন্ত্রী হতেন তাহলে হয়তো বুদ্ধিজীবীদের গুলি করতেন কারণ তারা ‘বিপজ্জনক’।
জুনে কর্নাটকের নির্বাচনের পরপরই তিনি নিজ দলের কর্মীদের এক বৈঠকে বলেছিলেন, মুসলিমদের উন্নয়নের জন্য বিজেপির কাজ করা উচিত নয়, কারণ তারা এই দলকে ভোট দেয় নাই।
“হিন্দুরাই আমার জয় নিশ্চিত করেছে। আমি হিন্দু সম্প্রদায়ের উন্নতির জন্য কাজ করবো, মুসলিমদের জন্য নয়,” তিনি এমনটাই বলেছিলেন বলে প্রকাশিত উদ্ধৃতিতে জানিয়েছিল পিটিআই।
কয়েক বছর আগে বিজেপি থেকে বের হয়ে গিয়েছিলেন ইয়াতনাল, কিন্তু কর্নাটক নির্বাচনের ঠিক আগে আবার দলটিতে ফিরে যান।

Related Posts

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *