প্রীতিলতা

লক্ষ্মীপুরে গৃহবধুকে গণধর্ষণের অভিযোগ

বিএনএন ৭১ ডটকম
লক্ষীপুর: লক্ষ্মীপুরে ৬মাসের অন্তস্বত্ত্বা এক গৃহবধুকে দলবেঁধে ধর্ষণের অভিযোগ পাওয়া গেছে। ভর্তির পর বৃহস্পতিবার পর্যন্ত ভ্যাকটিমের চিকিৎসা চলছে সদর হাসপাতালে। এর আগে সোমবার রাতে পৌর শহীদ স্মৃতি হাইস্কুল সড়কের মনোয়ারা ম্যানশনে (৩য় তলা ভবনে) তাকে ধর্ষণ করা হয় বলে জানান, নির্যাতি ওই নারী। পুলিশ জানান, এ ঘটনায় বুহস্পতিবার সদর থানায় মামলা হয়েছে। অভিযুক্তদের গ্রেফতারে কাজ করছে পুলিশ। সদর হাসপাতালে চিকিৎসাধীন নির্যাতিত নারী জানান,তিনি চট্রগ্রামের একটি গার্মেন্টসে চাকুরী করতেন। চাকুরীতে থাকাকালীন সময়ে লক্ষ্মীপুর সদর উপজেলার আইয়ুব আলী পুল এলাকার পিকআপভ্যান চালক জহিরের সঙ্গে বিয়ে হয়। পরে তারা বেশ কয়েকদিন চট্রগ্রামে ভাড়া বাসা নিয়ে বসবাস শুরু করে ছিলেন। এর মধ্যে ও নারী অন্তঃসত্ত্বা হলে তার স্বামী জহিরুল তাকে চট্রগগ্রামে রেখে লক্ষ্মীপুরে চলে আসেন।

ওই নারী তার স্বামী সন্ধানে সোমবার এসে পৌছলে স্বামীর মোবাইল ফোন বন্ধ থাকায় এমনকি শশুর বাড়ী না চিনায় এক যুবক তার স্বামীর নিকট পৌছে দেয়ার কথা বলে আশ্রয়স্থ করে শহীদ স্মৃতি হাইস্কুল সড়কের মনোয়ারা ম্যানশন ভবনের ফেরদৌসের ভাড়া বাসায় নিয়ে যায়। পরে ওই ভবনের নিচতলার ২/৩ জন যুবক দলভেধে ওই নারীকে দলবেধে ধর্ষণ করে। পরে তাকে ওই নারীর সঙ্গে থাকা ৫ হাজার দুইশত টাকা তারা ছিনিয়ে নিয়ে যায়। ওসময় নির্যাতিত নারীর চিৎকারে আশ-পাশের লোকজন তাকে উদ্ধার করে। পরে দ্রুত অসুস্থ সদর হাসপাতালে ভর্তি করে স্থানীয়রা। স্থানীয় কয়েকজন জানান,লক্ষ্মীপুর পৌর শহরের মনোয়ারা ম্যানশনের নিছ তলায় রাতে বাসাটিতে কয়েকজন পুরুষের আনাগোনা ও এক নারীর চিৎকারে বিষয়টি টের পেয়ে এগিয়ে ওই নারীকে উদ্ধার করাসহ দ্রুত ওই নারীকে আহত অবস্থায় হাসপাতালে নেয়া হলে ততক্ষণে বাসায় তালা ঝুলিয়ে দৌড়ে যায় বাড়াটিয়া ফেরদৌসসহ সহপাঠিরা। এরপর আর বিষয়টি তারা পুলিশকে অবহিত করেন। পরে পুলিশ এসে ঘটনাস্থল পরিদর্শণ করেন। সদর মডেল থানার ওসি মোহাম্মদ লোকমান হোসেন জানান,ঘটনাটি দু:খ ও লজ্জাজনক। এ ব্যাপারে থানায় মামলা হয়েছে। অভিযুক্তদের গ্রেফতারের চেষ্ঠা চলছে। এ ছাড়া এ ঘটনায় আরো বিস্তাতি তদন্ত করে প্রয়োজনীয় আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

Related Posts

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *